সোমবার একের পর এক টুইটে তিনি সিরিয়ার ওই এলাকা থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বাহিনী সরিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্তের পক্ষেও যুক্তি দিয়েছেন। তবে পর্যবেক্ষকদের আশঙ্কা, যুক্তরাষ্ট্রের সৈন্য প্রত্যাহারের ফলে উত্তর-পূর্ব সিরিয়ার কুর্দি যোদ্ধারা আঙ্কারার সাঁড়াশি আক্রমণের শিকার হতে পারেন। খবর বিবিসির।



মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটবিরোধী লড়াইয়ের মিত্র কুর্দিদের পাশ থেকে সরে এসে এভাবে তাদের ওপর আক্রমণের পথ করে দেওয়ায় ট্রাম্প প্রভাবশালী রিপাবলিকানদেরও তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছেন। তারা যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টকে সিদ্ধান্ত বদলাতেও অনুরোধ জানিয়েছেন।


Read this full article

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here